• আজ সকাল ৭:১৭, শনিবার, ১৮ই মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৪ঠা জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১০ই জিলকদ, ১৪৪৫ হিজরি
  • shadinkhobor24@gmail.com
  • ঢাকা, বাংলাদেশ

ঠাকুরগাঁওয়ে ঐতিহ্যবাহী হাডুডু খেলার আয়োজন

নিজস্ব প্রতিবেদক, স্বাধীন খবর ডটকম
প্রকাশের তারিখ: রবিবার, নভেম্বর ৬, ২০২২ ৫:২৮ অপরাহ্ণ পরিবর্তনের তারিখ: রবিবার, নভেম্বর ৬, ২০২২ ৫:২৮ অপরাহ্ণ

 

বাংলাদেশের জাতীয় খেলা হাডুডু হলেও গ্রাম পর্যায়ে এই খেলাটি প্রায় বিলুপ্তির পথে। গ্রাম বাংলার এই ঐতিহ্যবাহী খেলাটি এক সময় ব্যাপক হাড়ে খেলা হলেও বর্তমানে আর চোখেই পড়েনা। বাংলার ঐতিহ্য ও খেলাটিকে টিকে রাখার জন্য ঘরোয়া পরিবেশে ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীশংকৈলের প্রত্যন্ত গ্রাম অঞ্চলে স্থানীয়দের আয়োজনে হাডুডু টুর্নামেন্ট-২০২২ এর খেলা শুরু হয়েছে।

বৃহস্পতিবার বিকালে রাণীশংকৈল উপজেলার রাঘোবপুর মন্ডল বাজার এলাকার এক মাঠে স্থানীয়ভাবে মাসব্যাপী এই হাডুডু টুর্নামেন্টের উদ্বোধন করা হয়। উদ্বোধনের দিন ও শনিবার প্রথম পর্বের খেলা অনুষ্ঠিত হয়। বিলুপ্ত প্রায় ওই এলাকায় ১১ বছর পরে এই খেলাটি আবার শুরু হওয়ায় মাঠে স্থানীয় উৎশুক জনতার উপচেপড়া ভীর লক্ষ করা গেছে। এতে উৎসব মুখর পরিবেশে মাঠে খেলা শুরু হওয়ার আগেই স্থানীয় নারী পুরুক ও শিশু কিশোর, বয়স্ক বয়জষ্ঠারা জমায়েত হন।

খেলা দেখতে আসা স্থানীয় দর্শকরা জানান, এলাকায় দীর্ঘ ১১ বছর ধরে এই খেলা বন্ধ ছিল। স্থানীয়দের সহযোগীতায় ও উদ্যোগে আবার খেলা শুরু হওয়ায় তারা খুব আনন্দিত ও খেলাটিকে ধরে রাখার আবদেন তাদের।

মো. রুবেল ইসলাম নামে খেলা দেখতে আসা এক কৃষক বলেন, আমরা গ্রামের কৃষক মানুষ তেমন বিনোদন করার সময় পাইনা। অনেক দিন পরে আমাদের এখানে হাডুডু খেলা শুরু হয়েছে। তাই দেখতে এসেছি। খেলা দেখে ভালোই লাগছে।

মনছুর আলম নামে স্থানীয় এক কিশোর বলেন, ঐতিহ্যবাহী এই খেলাটি এর আগে আমাদের গ্রামে আমি দেখিনি। হঠাৎ করে স্থানীয়রা এ খেলার আয়োজন করেছেন বলে আজ এধরণের খেলা দেখতে পারছি।

আব্দুর রহিম নামে এক দর্শক বলেন, হাডুডু খেলা আমাদের এলাকায় দীর্ঘ ১১ বছর ধরে বন্ধ ছিল। এতে মনে করছিলাম মনে হয় খেলাটি আর কোনদিন চালু হবেনা। তবে এবার এলাকাবাসী এটি আবার চালু করেছে দেখে খুব আনন্দ হচ্ছে।

আব্দুল্লাহ আল নোমান নামে আরেক দর্শক বলেন, বাংলাদেশের জাতীয় খেলা হাডুডু। এই জাতীয় খেলাটিকে আবার চালু করার জন্য আয়োজদের ধন্যবাদ জানাই ও খেলাটিকে ধারাবাহিকভাবে চালু রাখার জন্য অনুরোধ করছি। কারণ এখনকার গ্রামের অনেক শিশু কিশোর হাডুডু খেলা কি তা চোখেই দেখেনি। যেহেতু এটি আমাদের দেশের জাতীয় খেলা তাই খেলাটি চালু রাখা আবশ্যক।

খেলাটিকে আবার চালু করতে পেরে গর্বিত ও এটিকে টিকে রাখার জন্য সরকারসহ সকলের সহযোগিতা কামনা করনে উপজেলার বাচোর ইউনিয়নের ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক মো. আবু হোসেন।

খেলা আয়োজক কমিটির সভাপতি মো. নিজাম উদ্দিন বলেন, এলাকাবাসীকে আনন্দ দিতে ও খেলাটিকে ধরে রাখার জন্য এই হাডুডু টুর্নামেন্টের আয়োজন করার উদ্দ্যেশ্য।

এছাড়াও খেলায় মোট ১৬টি টিম ও প্রতিটি দলে ৭ জন করে দুই দলে মোট ১৪ জন স্থানীয় খেলোয়ার অশংগ্রহণ করছে। এদের মধ্যে বিজয়ী প্রথম টিমকে ৩২ ইঞ্চি রঙ্গীন টেলিভিশন ও দ্বিতীয় পুরুষ্কার ২৪ ইঞ্চি টেলিভিশন পুরুষ্কার হিসেবে দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন খেলার আয়োজকরা।

Print Friendly, PDF & Email
 
 
স্বাধীন খবর ডটকম/আ আ
 

জনপ্রিয় সংবাদ

 

সর্বোচ্চ পঠিত সংবাদ

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com
WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com